মঙ্গলবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫:১৪ পূর্বাহ্ন

সড়কে বিশৃঙ্খলা দূর হবে কবে!

শাহ মুনতাসির হোসেন মিহান
  • প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ১৯ মার্চ, ২০২১
  • ১০৩ বার দেখা হয়েছে

আমাদের নিত্য নৈমিত্তিক জীবন যাপন চলাচলে অন্যতম একটি অনুষঙ্গ হচ্ছে যানবাহন ।প্রতিদিন বিপুল সংখ্যক যাত্রী এবং আমরা যানবাহনে চলাচলের মাধ্যমে আমাদের নির্দিষ্ট গন্তব্যে যাওয়া আসা করে থাকি। এইসব যানবাহনে গাড়ির অবস্থা খুব সন্তোষজনক নয়।বেশির ভাগ গাড়িই লক্কর ঝক্কর, সিট গুলোরবেহাল অবস্থা,ইন্জিনজনিত সমস্যা সঙ্গে লাইসেন্সযুক্ত অভিজ্ঞ একজন প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত চালকের প্রশ্ন থেকেই যায়। রাজধানীসহ সারাদেশেই চলছে ত্রুটিপূর্ণ যান, লক্কর ঝক্করগাড়ি। তারপরও যাত্রীরা তাদের জীবিকা নির্বাহে অন্বেষণ এর কথা মাথায় রেখে এইসব গাড়ি ব্যবহারে পিছপা হয় নাহ।

তাছাড়া বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে শুধু লক্কর ঝক্কর গাড়ি,ত্রুটিপূর্ণ যান নাহ সিংহভাগ ভাগ গাড়ির চালকেরই লাইসেন্স থাকে নাহ।যার দরুন লাইসেন্সবিহীন অবৈধ চালক অবাধে যানবাহন চলাচলে বিচরণ করছে সড়ক ও মহাসড়কগুলোতে।এইসব লাইসেন্সবিহীন অবৈধ চালকের হাতে আদৌ কি যাত্রীরা নিরাপদ থাকে!!নির্বিঘ্নে অক্ষত অবস্থায় লক্ষ্যস্থলে কি পৌঁছে দিতে পারে? অবশ্যই নাহ।ফলে সড়ক, মহাসড়কগুলোতে এসব অবৈধ চালকের কারণে সৃষ্টি হয় সড়ক দুর্ঘটনার।অকালে প্রাণ ঝরে যাত্রীর। এমনকি রাস্তার পাশে দাঁড়িয়ে থাকা পথচারীও রেহাই পায় নাহ তাদের কাছ থেকে।মূলত কর্তৃপক্ষের উদাসীন,অনাগ্রহের জন্য উদ্দামভাবে কোনও প্রকার নিয়মনীতি তোয়াক্কা না করে মহাসড়কগুলোতে দিন দিন বেড়েই চলেছে লাইসেন্সবিহীন অবৈধ চালকের সংখ্যা।এছাড়া সড়কপথগুলোতে বাধাবন্ধনহীনভাবে চলাচল করছে ফিটনেসবিহীন গাড়ি। সেইদিকেও কর্তৃপক্ষের লেশমাত্র নজর নেই।

বাংলাদেশ রোড ট্রান্সপোর্ট অথরিটির (বিআরটিএ) তথ্য অনুযায়ী, বর্তমানে দেশে বাস ও ট্রাকসহ মোট দুই লাখ ৫০ হাজার ৮০৩টি ভারী যানবাহন রয়েছে। এসব যানবাহনের মধ্যে ১ লাখ ৮৩ হাজার ৭৭৩টিতে বৈধ চালক রয়েছে।
অথচ ৬৭ হাজার ৩০টি বাস ও ট্রাকের স্টিয়ারিং অবৈধ চালকের হাতে। ভারী লাইসেন্স না থাকলেও তারা দিব্যি গাড়ি চালাচ্ছেন।মোটাদাগে বলতে গেলে এই ৬৭ হাজার ৩০ টি বাসের অবৈধ চালকই সড়কপথে দূর্ঘটনা, বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিতে প্রধান ভূমিকা রাখছে।

এহেন অবৈধ ও অদক্ষ চালকের কারণে দেশে প্রতিনিয়ত সড়কপথে দূর্ঘটনা অতিরিক্তপরিমাণে বেড়ে যাচ্ছে।ফলসরুপ কোনও পথচারী অকালে না ফেরার দেশে পাড়ি জমাচ্ছে নতুবা কারো পঙ্গুত্ব বরণ করতে হচ্ছে। ফলে পরিবার হারাচ্ছে কারো সন্তান, মা,বাবা,আত্নীয় স্বজন কিংবা উপার্জনক্ষম ব্যাক্তিকে।

এখন সময় এসেছে সড়কপথে অনতিক্রম্যে যথাসম্ভব এসব স্বেচ্ছাচার ও অনিয়ম দূর করতে হবে।সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে নিয়মিত তদাকরি করতে যেন কোনও প্রকার লাইসেন্সবিহীন অবৈধ চালক ও ফিটনেসবিহীন গাড়ি চলাচল করতে পারবে নাহ।প্রয়োজনে লাইসেন্সবিহীন অবৈধ চালক ও ফিটনেসবিহীন গাড়ির উপর নিষেধাজ্ঞা প্রদান করতে হবে এবং এসব লাইসেন্সবিহীন অবৈধ চালককে অতিদ্রুত লাইসেন্সের আওতায় আনতে হবে।
তাহলে নিয়মনীতি শৃঙ্খলার গতিপথ তৈরির মাধ্যমে কিছুটা হলেও হ্রাস পাবে সড়কপথে দূর্ঘটনা।

লেখক শাহ মুনতাসির হোসেন মিহান শিক্ষার্থী,সমাজকর্ম বিভাগ(২য় বর্ষ)নো

নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2021 Lakshmipurer Chitro
Design & Developed by Freelancer Zone
themesba-lates1749691102
Protected